সর্বশেষ সংবাদ :

প্রবাসীরা দেশে আসলে নবাবজাদা হয়ে যান: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

Share Button

রিপোর্টার:-দৈনিক মুক্তকন্ঠ,
১৬ মার্চ ২০২০। সময : ০৭,০৫. AM.

বাঙালি প্রবাসীরা দেশে আসলে তারা নবাবজাদা হয়ে যান। তারা কোয়ারেন্টাইনে যাওয়ার বিষয়ে খুব অসন্তুষ্ট হন। একথা বলেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন। তিনি বলেন, ফাইভ স্টার হোটেল না হলে তারা অপছন্দ করেন।

রোববার রাজধানীতে বাংলাদেশ ইন্সটিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজে (বিআইআইএসএস) এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ সব কথা বলেন।

শনিবার আশকোনা হজ ক্যাম্পে অস্থায়ী কোয়ারেন্টাইনের বিষয়ে ইতালিফেরত ১৪২ জন প্রবাসীর বিক্ষোভের বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, তারা গতকাল (শনিবার) খুব অস্থিরতা করেছেন। তারা দেশে আসছেন, কোনো কোয়ারেন্টাইনে যেতে চান না। সঙ্গে সঙ্গে তারা বাড়িতে যাবেন। আমরা যেখানে রেখেছিলাম, আগেও রেখেছিলাম, তারা সেটা পছন্দ করেননি। বাংলাদেশে ফ্ল্যাট বাথরুম, তারা কমোড বাথরুম ইউজ করেন। সুতরাং তাদের অসুবিধা হয়েছে। আমরা সেখানে পর্যটন থেকে খাবার দিয়েছি, কিন্তু তারা মনে করেন সোনারগাঁও, ফাইভ স্টার থেকে খাবার দেয়া উচিত। সেটা দিতে পারিনি। সে জন্য তারা অসন্তুষ্ট হয়েছেন। তাদের বিভিন্ন রকম অভিযোগ ছিল। তারা মনে করেন এগুলো খুব নোংরা।

তিনি বলেন, আমাদের তো দৈন্যতা আছে, এটা তো একটা বিশেষ অবস্থা। আমরা যাদের নিয়ে আসি, তাদের হজক্যাম্পে রাখি, এখন আরও কয়েকটা হাসপাতালও প্রস্তুত করে রেখেছি।

এক প্রশ্নের জবাবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সরকারের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে দেশের জনগণকে রক্ষা করা। সুতরাং কয়েকজনের কারণে দেশের সাড়ে ১৬ কোটি মানুষ অসুস্থ হোক- তা সরকার চায় না। সরকার আবেদন করেছিল প্রবাসীরা যেন এখন দেশে না আসেন, তারা যেন আরও কিছুদিন সেখানে থাকেন। কিন্তু তারা শুনেননি। সে জন্য বাধ্য হয়ে ফ্লাইট বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। আজ (রোববার) মধ্যরাত ১২টা ১ মিনিট থেকে এটি কার্যকর হবে।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশি নাগরিককে ভারত তাদের দেশে যেতে দিচ্ছে না। বাংলাদেশও আজ থেকে ভারতের নাগরিকদের ঢুকতে দেয়া বন্ধ করেছে।

Comments are closed.

Scroll To Top
Bangladesh Affairs