সর্বশেষ সংবাদ :

কুমিল্লার হোমনায় নির্যাতনে অন্তসত্তা গৃহবধূ নিহত

Share Button

timthumb.php

রিপোর্টঃ-মোঃ মহিউদ্দিন লিটন
কাজিরগাও,কুমিল্লা, ১৪ নভেম্বর ২০১৪।

স্বামী, দেবর, ননদ আর শ্বাশুরীর নির্মম নির্যাতনে অন্তসত্তা গৃহবধূ শিরিন (২২)কে হত্যা করা হয়েছে। এমন অভিযোগ করেছেন মেয়ের পরিবার। খবর পেয়ে হোমনা থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

বৃহস্পতিবার ময়না তদন্তের জন্য লাশ কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে মেয়ের স্বামীর বাড়ি কুমিল্লার হোমনা উপজেলার সীতারামপুর গ্রামে। সে কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার থোল্লা গ্রামের মো. বাছির আলীর মেয়ে।

গত ৬/৭ বছর আগে শিরিনার বিয়ে হয়। নিহতের ৪ বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। বর্তমানে সে সন্তান সম্ভবা ছিল। নিহতের বাবা বাছির এবং ভাই শিপন জানায়, মঙ্গলবার রাতের বেলায় ঘাতক স্বামী মো. মামুন, দেবর সজিব, ননদ শিখা আর শ্বাশুরী হোসনে আরা নির্মমভাবে নির্যাতনের পর তাকে হত্যা করে তাকে রান্না ঘরের খুঁটির সাথে গলায় রশি লাগিয়ে আটকে রাখে।

তারা আরও অভিযোগ করে বলেন, তাকে বিয়ে দেয়ার পর থেকেই তার দেবর এবং ননদ তাকে একেবারেই সহ্য করতে পারতনা। কারণে অকারণে প্রায়শই তাকে মারধর করত। পুলিশ জানায়, নিহতের শশুর বাড়ির রান্ন্ াঘরের একটি খুঁটিতে ঝুলন্ত অবস্থা থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামরুজ্জামান সিকদার বলেন, পারিবারিক অশান্তির কারণে তাকে মারধর করে হত্যা করা হয়েছে প্রাথমিকভাবে তা প্রতিয়মান হয়েছে।

এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। স্বামী, দেবর, ননদ এবং শ্বাশুরীকে আটক করে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

Comments are closed.

Scroll To Top
Bangladesh Affairs