তিতাস প্রেস ক্লাবের সভাপতি জসিমউদ্দিনকে হত্যার উদ্দেশ্যে সন্ত্রাসী হামলার চেষ্টা

Share Button

Untitled-1-copy-300x160

স্টাফ রির্পোটার, হোমনা
কুমিল্লার তিতাসে আইন শৃঙ্খলা সভায় সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে বক্তব্য দেয়ায় তিতাস প্রেস ক্লাবের সভাপতি এবং দৈনিক ইনকিলাব পত্রিকার কুমিল্লা উত্তর সংবাদদাতা বিশিষ্ট আওয়ামীলীগ নেতা মোহাম্মদ জসিমউদ্দিন মোল্লাকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা করার চেষ্টা করেছে এলাকার চিহ্নিত অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীর একটি দল। এসময় কোনমতে রক্ষা পেয়ে সাংবাদিক জসিমউদ্দিন দাউদকান্দির গৌরীপুর প্রেস ক্লাবে আশ্রয় নেয়। পরে তিনি তিতাস থানা পুলিশ ও স্থানীয় সাংবাদিকদেরকে বিষয়টি জানালে তিতাস থানা পুলিশ দাউদকান্দি প্রেস ক্লাব থেকে সাংবাদিক জসিমউদ্দিনকে উদ্ধার করে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে এ ঘটনা ঘটেছে। ঘটনার বিবরনে জানা যায়, গত ২৯ সেপ্টেম্বর কুমিল্লার তিতাস উপজেলা পরিষদের আইন শৃঙ্খলা সভায় তিতাস প্রেস ক্লাবের সভাপতি এবং আওয়ামী লীগ নেতা মোহাম্মদ জসিমউদ্দিন মোল্লাসহ তার পরিবারের উপর চিহ্নিত সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে দীর্ঘদিনের অত্যাচার নির্যাতন ও হামলার বিবরন তুলে ধরে বক্তব্য দেয়। এ খবর সন্ত্রাসীরা পাওয়ার পর থেকে সাংবাদিক জসিমকে হত্যার উদ্দেশ্যে খোঁজতে থাকে। এদিকে গতকাল মঙ্গলবার সকাল ৯টার দিকে তিতাসের শাহাপুর গ্রামের মামার বাড়ি থেকে উপজেলা পরিষদের একটি সভায় যোগদানের জন্য সিএনজি দিয়ে সাংবাদিক জসিম রওয়ানা দিলে শিবপুর লালপুর সড়কের শিবপুর মাদ্রাসার কাছে পৌছলে ওই সন্ত্রাসীরা সিএনজি গতিরোধ করার চেষ্টা করে। সন্ত্রাসীরা তখন সাংবাদিক জসিমের নাম ধরে ‘ধর ধর’ বলার সাথে সাথে বুঝতে পেরে চতুর সিএজি চালক ডানদিক দিয়ে দ্রুত দাউদকান্দির গৌরীপুর মোড় প্রেস ক্লাবের দিকে চলে যায়। এসময় সাংবাদিক জসিম প্রেস ক্লাবে আশ্রয় নিয়ে বিষয়টি তিতাস থানা পুলিশ ও স্থানীয় সাংবাদিকদের জানান। পরে পুলিশ ও সাংবাদিকগন ওই প্রেস ক্লাব থেকে সাংবাদিক জসিমকে উদ্ধার করে। এদিকে এর আগে বিষয়টি তিতাস উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক মোঃ সওকত আলীকে অবহিত করেন। এদিকে বিশিষ্ট সাংবাদিক জসিমউদ্দিনকে হত্যার উদ্দেশ্যে সন্ত্রাসী হামলার চেষ্টার খবর পেয়ে শাহাপুর গ্রামের মানুষের মধ্যে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। গ্রামে চরম উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। গ্রামের বিশিষ্ট ব্যক্তিগন বলছেন, উক্ত সন্ত্রাসীদেরকে জরুরী ভিত্তিতে আইনের আওতায় না নিলে যে কোন সময় অনাকাংখিত ঘটনার জম্ম দিতে পারে। উল্লেখ, উক্ত সন্ত্রাসীরা সাংবাদিক জসিমকে তার মা’র জানাজায় শরিক হতে দেয়নি এবং তার মাকে শেষবারের মত দেখার সুযোগও দেয়নি। এই কথাটিই তিনি বার বার ওই সভায় বলেছিলেন। সাংবাদিক জসিমকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলার চেষ্টার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে, এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিগন ও দাউদকান্দি এবং তিতাস প্রেস ক্লাবের সাংবাদিকবৃন্দ।